ফেনীর রাজনীতি নিয়ে আগ্রহ হারিয়ে ফেলছেন নাছিম, একরাম হত্যা মামলার আসামিদের জামিনে হতাশ!

আপডেট : October, 31, 2016, 9:57 am

fb_img_1477907391587জাবেদানকলজাবেদ হোসাইন মামুন->>>
প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সাবেক প্রটোকল অফিসার, ফেনীর পরশুরামের কৃতি সন্তান, পর্দার আড়ালে থাকা প্রচার বিমুখ আলা উদ্দিন আহমেদ চৌধুরী তার ফেসবুক স্টেটাসে লেখেছেন,
ফেনীর ফুলগাজী উপজিলা চেয়ারম্যান আমার অত্যন্ত স্নেহাস্পদ একরাম হত্যা মামলার প্রায় সব আসামি হাইকোর্ট থেকে জামিনে মুক্তি পেয়েছে। এই মামলার আসামীরা মুক্তি পাওয়ায় আমি খুব হতাস। মামলা বিচারাধীন। সর্বোচ্চ আদালতের সিদ্ধান্ত নিয়ে কথা বলা অদালত অবমাননা। তাই বললাম না। সাক্ষিরা কি সাক্ষ্য দিতে আর সাহস পাবে। ফেনীর রাজনীতির ব্যপারে ক্রমেই আগ্রহ হারিয়ে ফেলছি। জানিনা কি করব।
তার এ লেখা একান্ত তার ব্যক্তিগত বিষয়। আদালত অবমাননার ভয়ে তিনি আরো অনেক কথা চেপে রেখেছেন বলে মনে হয়। এটাই বুঝা যায়, তবে ফেনীর রাজনীতি নিয়ে তিনি যে ক্রমেই আগ্রহ হারিয়ে ফেলছেন তাও কতটুকু হতাশ হলে বলতে পারেন সহজে অনুমেয়।
তার এ লেখনীতে ফেনীর আওয়ামী রাজনীতিতে কি কোন নয়া মেরুকরণ কিংবা আগের মতই থাকবে তা পরিস্কার ভাবে জানতে চায় অনেকে। রাজনীতির সমীকরণ মেলানোতো খুব কঠিন।
জনশ্রুতি রয়েছে সাবেক সাংসদ জয়নাল হাজারীর পতন ঘটিয়ে নিজাম উদ্দিন হাজারীর উত্থানে নেপথ্যের কারিগর হিসেবে কাজ করেছেন আলা উদ্দিন নাছিম। ফেনী জেলায় উন্নয়নেও তার ভূমিকা ছিল বেশী। সদ্য সমাপ্ত বাংলাদেশ আওয়ামীলীগের কেন্দ্রীয় কাউন্সিলে তাকে যুগ্ম সাধারন সম্পাদক নির্বাচিত করার গুঞ্জন ছিল। কিন্তু নোয়াখালীর কৃতি সন্তান ওবায়দুল কাদেরকে কেন্দ্রীয় সাধারন সম্পাদক নির্বাচিত করায় সম্ভাবত আলাউদ্দিন নাছিমের কপাল খোলেনি। এর পর থেকে তিনি আবার পর্দার আড়ালে রাজনীতি করার ঘোষণা দেন। তবে সদ্য সমাপ্ত সম্মেলনে তার সরব ভূমিকা ছিল।