সোনাগাজীর নবাবপুরের সুলতানপুরে প্রবাসীর জমি জবর দখলের পাঁয়তারা

আপডেট : November, 13, 2020, 6:48 am

স্টাফ রিপোর্টার->>>
ফেনীর সোনাগাজীর নবাবপুর ইউনিয়নের সুলাতাপুর গ্রামের শহীদ উল্যাহ নামে এক সৌদি প্রবাসীর জমি জবরদখলের পাঁয়তারা করছে একটি সংঘবদ্ধ কুচক্রিমহল। এর আগে আদালতে মুছলেকা দিলেও সংঘবদ্ধ এই চক্রটি তার জমিগুলো জবরদখলে নিতে নানা কুটকৌশলে লিপ্ত রয়েছেন। সন্ত্রাসীদের অব্যাহত হুমকিতে প্রবাসীর স্ত্রী মনোয়ারা বেগম সহ পরিবারের সদস্যরা চরম নিরাপত্তাহীনতায় রয়েছেন বলে জানিয়েছেন। প্রাপ্ত অভিযোগে জানা গেছে, সুলাতানপুর গ্রামের মিঝি বাড়ির সৌদি প্রবাসী শহীদ উল্যাহ ৩০০নং পশ্চিম সুলতানপুর মৌজার সিএস ৪৭নং খতিয়ানের ৫৯৩ দাগ, দিয়ারা ৩৯৩ নং খতিয়ানের ৭২৮দাগ, বিএস ৬৩১খতিয়ানের ৯৭৪ দাগের ৪৭ শতক জমির আন্দরে ১৩শতক জমি ভোগদখলকার রয়েছেন। উক্ত জমিতে তিনি সীমানা প্রাচীর ও বসতঘর নির্মাণ করে ভোগদখলে রয়েছেন। উক্ত জমি দখলে নিতে একই এলাকার মৃত মফজল হকের ছেলে ফজলুল হক গংদের লোপুপ দৃষ্টি পড়ে। উক্ত জমি জবর দখল করতে শহীদ উল্যাহর স্ত্রী ও সন্তানদের উপর একাধিকবার হামলাও করেছে। নিরাপত্তার সার্থে তারা বাড়িতে তালা মেরে ফেনী শহরের একটি ভাড়া বাসায় আশ্রয় নেয়। এসব অত্যাচার, হামলা ও হুমকির বিষয়ে শহীদ উল্যাহর স্ত্রী মনোয়ারা বেগম ২০১৯ সালের ৯ ফেব্রুয়ারি সোনাগাজী মডেল থানায় ফজলুল হক, শাহাজান আরা বেগম, জেসমিন আক্তার ও সেভন সহ চার জনের নাম উল্লেখ করে একটি সাধারণ ডায়রী করেন। তৎকালীণ সময়ে ঘটনার সত্যতা পেয়ে এএসআই আবু কাউছার নন.এফ.আই.আর নং-১৪/২০১৯খ্রি. তাং- ১৩-০২-২০১৯খ্রি. ধারা-১০৭/১১৭ (সি) ফৌ.কা.বি প্রতিবেদন দাখিল করেন। উক্ত নন.এফ.আই.আর মামলায় বিবাদিরা ফেনীর নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে গিয়ে মুছলেকা দিয়ে অব্যাহতি পান। আদালত থেকে নিস্কৃতি পেয়ে বিবাদিরা কিছু দিন চুপচাপ থেকে পূণরায় উক্ত জমি জবরদখলে নিতে গোপন ষড়যন্ত্রে লিপ্ত হন। সম্প্রতি রাতের আঁধারে শহীদ উল্যাহর মালিকীয় উক্ত বাড়ির গেইট ও বসত ঘরের তালা ভেঙে জবরদখলের চেষ্টা চালায়।
শহীদ উল্যাহর স্ত্রী মনোনয়ারা বেগম বাড়িতে গিয়ে তালাভাঙার দৃশ্য দেখতে পেয়ে গোপনে জানতে পারেন তার জমিটি জবরদখলে নিতে সংঘবদ্ধ কুচক্রিমহলটি অপতৎপরতায় লিপ্ত রয়েছেন। তিনি এ ব্যাপারে ফেনীর জেলা প্রশাসক, পুলিশ সুপার ও সোনাগাজী মডেল থানার ওসির হস্তক্ষেপ কামনা করেছেন।